স’ন্তান জ’ন্মের ৫ দিন পর হাসপাতালেই স্ত্রী’কে বালিশ চা’পা দিয়ে হ’ত্যা করলেন স্বা’মী!

খন্দকার রেদোয়ানা ইসলাম ইলু (৩০), টাঙ্গাইল জে’লার কালচারাল কর্মকর্তা। মাত্র ৫ দিন আগে জে’লার মির্জাপুরে কুমুদিনী হাসপাতালে একটি স’ন্তানের জ’ন্ম দেন তিনি। কিন্তু ভাগ্যের নি’র্মম পরিহাস, স’ন্তান জ’ন্ম দেওয়ার ৫ দিনের মাথায় স্বা’মীর হাতে খু’ন হন তিনি।

তার স্বা’মীর নাম মো. দেলোয়ার রহমান মিজান, ৪৫। তিনি একটি ব্যাংকের কর্মকর্তা।

জানা গেছে, রেদোয়ানার বাবার নাম রফিকুল ইসলাম। গ্রামের বাড়ি রংপুর জে’লার রোমানতলা গ্রামে। দীর্ঘদিন ধরেই স্বা’মী-স্ত্রীর মধ্যে নানা বি’ষয়ে মনোমালিন্য ছিল।

গত ২২ মার্চ প্রসব ব্য’থা নিয়ে খন্দকার রেদোয়ানা ইসলাম ইলু হাসপাতালে ভর্তি হন। জ’ন্ম দেন শি’শু কন্যা। শনিবার দুপুরে তার স্বা’মী মিজান ওই হাসপাতালে যান স্ত্রী ও শি’শু কন্যাকে দেখতে। এরপর স্ত্রী’কে বালিশ চা’পা দিয়ে শ্বা’সরো’ধে হ’ত্যা করে পা’লিয়ে যান তিনি।

এ ব্যাপারে টাঙ্গাইল জে’লা প্রশাসক ড. মো. আতাউল গনি বলেন, জে’লা কালচারাল কর্মকর্তার হ’ত্যার ঘ’টনাটি খুবই ম’র্মান্তিক। তাদের স্বা’মী-স্ত্রীর মধ্যে মনোমালিন্য ছিল দীর্ঘ দিনের।

এ নিয়ে জে’লা পর্যায়ে মীমাংসার চেষ্টাও হয়েছে। কিন্তু হাসপাতালে এসে স্ত্রী’কে এভাবে হ’ত্যা করবে এটা মেনে নেওয়া যায় না। ঘা’তক স্বা’মী মিজানের ক’ঠোর শা’স্তির দাবি জানান তিনি।

এ ব্যাপারে সিনিয়র সহকারী পু’লিশ সুপার (মির্জাপুর সার্কেল) দীপংকর ঘোষের স’ঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আইনি প্রক্রিয়া শেষে রেদোয়ানার লা’শ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

About admin

Check Also

যেভাবে ভেস্তে গেল বিএনপির উদ্যোগ!

২০ দলীয় জোট থেকে জামায়াতকে দূরে ঠেলতে বিএনপির একটি অংশ অনেকদূর অগ্রসর হলেই দলের অন্য …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *