Breaking News

‘না’রীর স্পর্শকাতর জায়গায় হাত দিলেও যৌ*aন নি’র্যাতন হবে না’

শ’রীরের স’ঙ্গে সংস্পর্শ না হলে সেটি যৌ*aন নি’র্যাতন নয়। এমনকি পোশাকের ও’পর দিয়ে শ’রীরের স্পর্শকাতর জায়গায় হাত দিলে শি’শু যৌ*aন নি’র্যাতন ও পর্নগ্রাফি দ’মন (পকসো) আইনের আওতায় যৌ*aন নি’র্যাতনের মধ্যে ধরা হবে না। সম্প্রতি এমনই রায় দিয়েছে ভারতের বম্বে হাইকোর্ট।

সোমবার (২৫ জানুয়ারি) ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম জি নিউজের একটি প্রতিবেদনে এসব ত’থ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভারতের নাগপুর বেঞ্চের বিচারপতি পুষ্পা গানেদিওয়ালা রায়ে বলেন, ‘কোন নাবালিকার যৌ*aন নি’র্যাতন প্রমাণ করতে গেলে শা’রীরিক সংস্পর্শ হয়েছে তার প্রমাণ দিতে হবে। অন্যদিকে, পোশাকের ও’পর দিয়ে যদি স্পর্শকাতর জায়গায় হাত দেওয়া হয় তাহলেও সেটি যৌ*aন নি’র্যাতনের আওতায় পড়বে না।

ভারতের শি’শু যৌ*aন নি’র্যাতন ও পর্নগ্রাফি দ’মন (পকসো) আইনের ৭ নম্বর ধারা অনুযায়ী এই রায় দেওয়া হয়েছে। ১২ বছরের একটি কি’শোরীর যৌ*aন নি’র্যাতন নিয়ে শুনানির রায় দিতে গিয়ে এমনই রায় দিয়েছে বম্বে হাইকোর্ট।

ওই কি’শোরীকে বাড়ি থেকে ডেকে তার স’ঙ্গে অশোভন আচরণ করেন এক ব্যক্তি। সেই স’ঙ্গে স্পর্শকাতর জায়গায় হাত দিয়ে তার পোশাক খোলার চেষ্টা করেন। কিন্তু সেই মুহূর্তে তার মা এসে যাওয়ায় মে’য়েটিকে ছেড়ে পা’লিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে অ’ভিযুক্ত। তার নামে স্থানীয় পু’লিশ স্টেশনে এফআইআর করা হয়।

অভিযোগের ভিত্তিতে ওই ব্যক্তিকে আ’টক করা হয়। এরপর তাকে বম্বে হাইকোর্ট তোলা হয়। শুনানির রায়ে ভারতের হাইকোর্ট জানায়, পকসো আইনের আওতায় ওই ব্যক্তি দোষী নয়।

তবে, ভারতের ৩৫৪ (শ্লী’লতাহা’নি) ও ৩৪২ (জো’র করে আ’টকে রাখা) ধারায় দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে। কারণ এই ঘ’টনায় নাবালিকার শ’রীরের স্পর্শ ও শ্লী’লতাহা’নির মতো ঘ’টনা ঘটেছে।

এদিকে এই রায় নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন ভারতের শি’শু অধিকার কর্মীরা। বিচারপতিদের মধ্যেও শোনা গিয়েছে গুঞ্জন। কেউ কেউ বলছে, এমন অদ্ভুত রায় নিজের কর্মজীবনে দেখেননি।

উল্লেখ্য, ‘পকসো আইনের ৭ নম্বর ধারায় বলা হয়েছে যৌ*aন উদ্দেশ্যে কেউ যদি কোন শি’শুর স্পর্শকাতর জায়গা স্পর্শ করে বা শি’শুটিকে স্পর্শ করতে বা’ধ্য করে, বা যৌ*aন উদ্দেশ্যে অন্য যেকোনো কাজ করে যাতে শা’রীরিক সংযোগ হচ্ছে কিন্তু ধর্ষণের মতো ঘ’টনা না ঘটে তাহলে তাকে যৌ*aন নি’র্যাতন হিসেবে গণ্য করা হবে।’

About admin

Check Also

যুক্তরাষ্ট্রে ৬০ লাখ ডলার রেখে গেছেন ‘পাঠাও’র ফাহিম সালেহ

বাংলাদেশের রাইড শেয়ারিং অ্যাপ পাঠাওয়ের সহপ্রতিষ্ঠাতা ফাহিম সালেহ যুক্তরাষ্ট্রে ৬০ লাখ ডলার রেখে গেছেন। নিউইয়র্কের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *